Lorem ipsum dolor sit amet, consectetur adipiscing elit. Test link

শিশুদের বৃদ্ধি ও স্মৃতিশক্তি বাড়াতে খাদ্য তালিকায় এই 3 জিনিস অবশ্যই রাখুন

কি খেলে বাচ্চার ব্রেইন ভালো হয়, কি খেলে বুদ্ধি বাড়ে, স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধির ঔষধ, মেধাবী শিশু চেনার উপায়, উপস্থিত বুদ্ধি বৃদ্ধির উপায়
বাচ্চাদের স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধির উপায়, কি খেলে বাচ্চার ব্রেইন ভালো হয়, কি খেলে বুদ্ধি বাড়ে, স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধির ঔষধ, ব্রেনোলিয়া খেলে কি হয়, মেধাবী শিশু চেনার উপায়, উপস্থিত বুদ্ধি বৃদ্ধির উপায়, বাচ্চাদের ব্রেন ভালো করার উপায়
 
শিশুদের বৃদ্ধি ও বুদ্ধি বাড়ানোর টিপস: একটি সুস্থ শৈশব একটি সুস্থ জীবনের ভিত্তি হিসাবে বিবেচিত হয়। যেসব শিশুর পুষ্টির সঠিক যত্ন নেওয়া হয়, তাদের অনেক রোগ, জটিলতা ইত্যাদির ঝুঁকি কম থাকে। এই কারণেই স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা সমস্ত পিতামাতাকে তাদের সন্তানদের স্বাস্থ্যকর এবং পুষ্টিকর খাবার দেওয়ার পরামর্শ দেন। একটি পুষ্টিকর খাদ্য খাদ্যে ভিটামিন, খনিজ, শর্করা, প্রোটিন এবং নির্দিষ্ট পুষ্টির অন্তর্ভুক্তি বোঝায়। শিশুদের শারীরিক ও মানসিক বিকাশে স্বাস্থ্যকর খাবারের বিশেষ ভূমিকা রয়েছে। এটি শুধুমাত্র আপনার সন্তানের শারীরিক বিকাশই বাড়াতে সাহায্য করবে না বরং তাকে রোগ থেকেও নিরাপদ রাখবে।
 
শিশুদের পুষ্টিকর খাবার দিন
শিশুদের পুষ্টিকর খাবার দিন

শিশু বিশেষজ্ঞরা বলছেন, শিশুদের কী খেতে দেওয়া উচিত, তার সঙ্গে কী কী জিনিস তাদের থেকে দূরে রাখা উচিত, সেদিকেও বিশেষ খেয়াল রাখা প্রয়োজন। ফাস্ট ফুড, চকলেট এবং কুকিজ ইত্যাদির ক্রমবর্ধমান ব্যবহার শিশুদের স্থূলতা, বুদ্ধিবৃত্তিক ক্ষমতা হারানো এবং আরও অনেক স্বাস্থ্য জটিলতার কারণ হচ্ছে। আসুন আমরা আরও বিশদে জানি যে বাড়ন্ত শিশুদের ডায়েটে কী কী জিনিস অন্তর্ভুক্ত করা উচিত। 

প্রোটিন এবং ভিটামিন

বাড়ন্ত শিশুদের জন্য প্রোটিন খুবই প্রয়োজনীয়। তারা পেশী ভর প্রচার এবং মস্তিষ্কের কোষ সুস্থ রাখতে সহায়ক। খাদ্যে মাংস এবং ডিম, মটরশুটি, মটর, সয়া পণ্য এবং সব ধরনের বাদাম অন্তর্ভুক্ত করা বিশেষত উপকারী হতে পারে। ভিটামিন সি, ডি এবং ই সমৃদ্ধ জিনিসের পরিমাণ বাড়ান। এগুলি একটি শক্তিশালী অনাক্রম্যতা এবং ভাল চোখের স্বাস্থ্য বজায় রাখতে সাহায্য করবে।
 
শিশুদের ডায়েট সুস্থ রাখুন
শিশুদের ডায়েট সুস্থ রাখুন

ফল ও সবুজ শাকসবজি

বাড়ন্ত শিশুদের বিভিন্ন পরিমাণে নির্দিষ্ট পুষ্টির প্রয়োজন হয়। শিশুর বৃদ্ধি ও বুদ্ধিবৃত্তিক বিকাশের জন্য খাদ্যতালিকায় ফল ও সবুজ শাকসবজি রাখুন। মৌসুমি ফল ভিটামিন ও খনিজ পদার্থের পাশাপাশি অ্যান্টিঅক্সিডেন্টে সমৃদ্ধ, যা শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় এবং বিভিন্ন রোগ ও সংক্রমণের ঝুঁকি কমাতে পারে। খাদ্যতালিকায় মৌসুমি ফল অন্তর্ভুক্ত করা বিশেষ উপকারী হতে পারে।
খাবারে প্রোটিনের পরিমাণ বাড়ান
খাবারে প্রোটিনের পরিমাণ বাড়ান

গোটা শস্য এবং দুগ্ধজাত দ্রব্য

শিশুদের খাদ্যতালিকায় গমের রুটি, ওটমিল, পপকর্ন, বার্লি-বাজরা ইত্যাদি গোটা শস্য অন্তর্ভুক্ত করা প্রয়োজন। এগুলি কেবল পুষ্টিতে সমৃদ্ধ নয়, অনেক স্বাস্থ্য সমস্যার ঝুঁকি কমাতেও সহায়ক বলে বিবেচিত হয়। এছাড়াও, আপনাকে অবশ্যই দুধ, দই, পনির বা ফর্টিফাইড সয়া মিল্কের মতো দুগ্ধজাত খাবার শিশুকে দিতে হবে, এগুলো হাড়ের বিকাশে সহায়ক।
 
গোটা শস্যের উপকারিতা কি
গোটা শস্যের উপকারিতা কি

এসব থেকে দূরত্ব বজায় রাখুন

শিশুদের স্বাস্থ্যের যত্ন নেওয়া খুবই জরুরী, তাই খাবারে অস্বাস্থ্যকর জিনিস একেবারেই অন্তর্ভুক্ত করবেন না। পাউরুটি, পাস্তা, পিজ্জা ইত্যাদি স্থূলতা ও পেটের রোগ বাড়াতে পারে। শিশুদের মধ্যে তাদের অভ্যাস অনেক স্বাস্থ্য জটিলতা সৃষ্টি করতে পারে। স্যাচুরেটেড এবং ট্রান্স ফ্যাট, সোডিয়াম খাবারের পরিমাণ কমিয়ে আনার বিষয়টি নিশ্চিত করুন।
 
জাঙ্ক ফুড রোগ বাড়ায়
জাঙ্ক ফুড রোগ বাড়ায়

দ্রষ্টব্য: এই নিবন্ধটি মেডিকেল রিপোর্ট এবং স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের পরামর্শের ভিত্তিতে তৈরি করা হয়েছে। 

দাবিত্যাগ:  আমাদের স্বাস্থ্য পরামর্শ বিভাগে প্রকাশিত সমস্ত নিবন্ধ ডাক্তার, বিশেষজ্ঞ এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সাথে আলাপচারিতার ভিত্তিতে প্রস্তুত করা হয়েছে। এই নিবন্ধটি প্রস্তুত করার সময় সমস্ত নির্দেশাবলী অনুসরণ করা হয়েছে। সংশ্লিষ্ট নিবন্ধটি পাঠকের জ্ঞান ও সচেতনতা বৃদ্ধির জন্য প্রস্তুত করা হয়েছে। কবিতার নিবন্ধে প্রদত্ত তথ্য ও তথ্যের জন্য দাবি করে না বা কোন দায়িত্ব নেয় না। উপরের নিবন্ধে উল্লিখিত বিষয় সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানার জন্য আপনার ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করুন।
Hi, I am Parimal Samanta, I am an Indian. I have passed high school from village school. Keep yourself healthy and help others stay healthy.

Post a Comment